বাউফলে ডায়াগনস্টিক সেন্টারে আগুন, ২০ লাখ টাকার ক্ষতি

বাউফলে ডায়াগনস্টিক সেন্টারে আগুন, ২০ লাখ টাকার ক্ষতি

আগের সংবাদ
মিরসরাইয়ে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে অস্ত্রসহ চারজন গ্রেপ্তার

মিরসরাইয়ে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে অস্ত্রসহ চারজন গ্রেপ্তার

পরের সংবাদ

মহম্মদপুরে নৌকাবাইচ দেখতে লাখো মানুষের ঢল

প্রকাশিত: অক্টোবর ২৫, ২০২৩ , ৫:২৭ অপরাহ্ণ আপডেট: অক্টোবর ২৫, ২০২৩ , ৫:২৭ অপরাহ্ণ
মহম্মদপুরে নৌকাবাইচ দেখতে লাখো মানুষের ঢল

মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলার পলাশবাড়ীয়া ইউনিয়নের ঝামা বাজার সংলগ্ন মধুমতি নদীতে আবহমান গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী নৌকাবাইচ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার (২৫ অক্টোবর) বিকালে এই নৌকাবাইচ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়।

লোকজ ঐতিহ্য শতবর্ষী নৌকাবাইচ প্রতিযোগিতা দেখতে মধুমতির দুই পাড়ে নামে লাখো মানুষের ঢল। এ উপলক্ষ্যে দুইদিন আগে থেকেই ঝামা বাজার এলাকা জুড়ে বসেছে গ্রামীন মেলা। আনন্দঘণ ও উৎসব মূখর পরিবেশের সৃষ্টি হয় এলাকা জুড়ে।

সকাল থেকেই মহম্মদপুর উপজেলাসহ আশপাশের শালিখা, নড়াইল, আলফাডাঙ্গা ও বোয়ালমারী উপজেলার বিভিন্ন এলাকার নানা বয়সি মানুষ আসতে থাকে ঝামা এলাকায়। তাদের উদ্দেশ্য
কাঙ্খিত সেই লোকজ ঐতিহ্য নৌকাবাইচ দু‘চোখ ভরে দেখবে বলে। প্রতি বছর দূর্গাপূজার দশমির পরেরদিন এই নৌকাবাইচ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়ে থাকে।

প্রতিযোগিতা শুরুর আগ মুহূর্তে মধুমতি নদীর দুই পাড়ে নামে দূর-দূরান্ত থেকে আসা লাখো মানুষের ঢল। তাদের উপস্থিতিতে এলাকায় সৃষ্টি হয় আনন্দঘণ ও উৎসব মূখর পরিবেশ।

উদ্বোধনের পরপরই সংগীতের তাল-লয়ে দাঁড়িয়াদের ছন্দময় দাঁড় নিক্ষেপে নদীর পানি ময়ূরপঙ্খির মতোই ঝিলমিল করে মধুমতির বুক জুড়ে। কাঁশার ঢং ঢং আর দাঁড়িয়াদের হেঁইও হেঁইও শব্দের তালে তালে উল্লাসে ফেটে পড়ে মধুমতি নদী পাড়ের আমুদে দর্শক।

এদিন দুপুর আড়াইটায় মেলা কমিটির সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান বেবী নাজনীনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বেলুন ও শান্তির প্রতিক কবুতর উড়িয়ে ঐতিহ্যবাহী এই নৌকাবাইচ প্রতিযোগিতার শুভ উদ্বোধন করেন মাগুরা-২ আসনের সংসদ সদস্য ড. শ্রী বীরেন শিকদার।

এরপর শুরু হয় কাঙ্খিত সেই চোখ জোড়ানো, মন মাতানো নৌকাবাইচ প্রতিযোগিতা। প্রতিযোগিতা শেষে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন অতিথিবৃন্দ।

এসএম

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়