রোহিঙ্গা সংকটের স্থায়ী সমাধান জরুরি

আগের সংবাদ

সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় আছে বলেই দেশ উন্নয়নে এগিয়ে যাচ্ছে

পরের সংবাদ

মেসির প্রথম ম্যাচ দেখতে গুনতে হবে কোটি টাকা

প্রকাশিত: জুলাই ১৮, ২০২৩ , ২:০৫ পূর্বাহ্ণ আপডেট: জুলাই ১৮, ২০২৩ , ২:০৬ পূর্বাহ্ণ
মায়ামির সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হলেন মেসি

আর্জেন্টিনার বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক লিওনেল মেসি এখন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে। নাম লিখিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের মেজর লিগ সকারের ক্লাব ইন্টার মায়ামিতে। মেসিকে মাঠে দেখতে অবশ্য বেশিদিন অপেক্ষা করতে হচ্ছে না মায়ামির দর্শকদের। ২১ জুলাই মায়ামির জার্সি গায়ে জড়িয়ে ক্রুজ আজুলের বিপক্ষে মাঠে নামবেন ফুটবলের এই মহাতারকা। তবে মাঠে বসে ফুটবল পায়ে মেসির জাদু দেখতে দর্শকের গুনতে হবে বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ১ কোটি ১৯ লাখ টাকা।

বজ্রঝড়, বৃষ্টি আর দমকা বাতাসের শঙ্কা উড়িয়ে দিয়ে রোববার (১৬ জুলাই) মেসিকে বরণ করে নেয় মায়ামি। সাত বারের ব্যালন ডি’অর জয়ীকে দেখতে ভিড় করে অগনিত ফুটবল ভক্ত। স্বাভাবিকভাবেই তাদের তড় সইছে না ফুটবল মাঠে মেসির জাদু দেখতে। মায়ামির জার্সি গায়ে মেসির অভিষেক হতে যাচ্ছে মেক্সিকোর ক্লাব ক্রুজ আজুলের বিপক্ষে। ভক্তদের এই রকম বাড়তি চাহিদার কারণে এই ম্যাচের টিকিটের দাম এখন আকাশচুম্বি। টিকিট বিক্রির ওয়েবসাইট ভিভিড সিটসে এই ম্যাচের টিকিটের দাম গিয়ে ঠেকেছে ১ লাখ ১০ হাজার মার্কিন ডলারে। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ প্রায় ১ কোটি ১৯ লাখ টাকা। টিকিটের এই দাম স্বাভাবিক সময়ে মায়ামির যে কোনো ম্যাচের চেয়ে ৯০০ শতাংশ বেশি।

এই ম্যাচের টিকেটের ন্যূনতম মূল্য এখন ৪৮৭ ডলার। বাংলাদেশি টাকায় যা প্রায় ৫২ হাজার টাকা। এই মূল্য গত বছরের ইন্টার মায়ামি এবং মেসির পুরোনো ক্লাব বার্সেলোনার মধ্যকার প্রীতি ম্যাচের টিকিট মূল্যের প্রায় দ্বিগুণ। টিকিটের এইরকম উচ্চমূল্যও ভক্তদের উৎসাহ কমাতে পারেনি। আমেরিকার ফুটবল ভক্তরা অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছে ফুটবল মাঠে মেসির প্রথম ম্যাচ দেখতে।

তাছাড়া, ক্রুজ আজুল ম্যাচ দিয়েই মেসি উন্মাদনা শেষ হচ্ছে না; এক মাস পর ২১ আগস্ট শার্লট এফসির বিপক্ষে মেসির এমএলএস অভিষেকের জন্য ইতোমধ্যেই সমর্থকরা তাদের আসন নিশ্চিত করতে উঠেপড়ে লেগেছে। ওই ম্যাচের টিকিটের দাম ইতোমধ্যেই প্রায় ২৮৮ ডলারে ছুঁয়েছে বাংলাদেশি মুদ্রায় যা প্রায় এখনই ৩১ হাজার টাকা, যা ইঙ্গিত দেয় যে আর্জেন্টাইন সুপারস্টারকে মাঠে দেখার জন্য টিকিটের চাহিদার ঊর্ধ্বগতি মাসজুড়েই অব্যাহত থাকবে।

মেজর লিগ সকারে (এমএলএস) লিওনেল মেসির উপস্থিতি শুধু ইন্টার মায়ামির পরিচিতিই বাড়াবে না বরং লিগ এবং সামগ্রিকভাবে আমেরিকান ফুটবলের জন্য যথেষ্ট আয় উপার্জনের পথ তৈরি করবে বলে আশা করা হচ্ছে।

মেসিকে অবশ্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে নিয়ে আসার লাভজনক চুক্তিটি আংশিকভাবে প্রযুক্তি জায়ান্ট অ্যাপল এবং স্পোর্টসওয়্যার ব্র্যান্ড অ্যাডিডাসের সঙ্গে একটি রাজস্ব ভাগাভাগি চুক্তির দ্বারা অর্থায়ন করা হয়েছে।

বিশ্বকাপজয়ী এই ফুটবলারের আগমন ফুটবল ঘিরে একটি প্রত্যাশা এবং উত্তেজনার অনুভূতি তৈরি করেছে পুরো মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে। ইন্টার মায়ামিতে তার অভিষেক আমেরিকান ফুটবলের ইতিহাসে সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য ঘটনাগুলোর মধ্যে একটি হতে যাচ্ছে।

ডি- এইচএ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়