শেখ হাসিনাকে ক্ষমতায় আনতে উন্নয়ন চিত্র তুলে ধরুন

আগের সংবাদ

অপকর্মে জড়িত কাউকে নেতা বানানো যাবে না

পরের সংবাদ

খানাখন্দে ভরা রাস্তায় দুর্ভোগ চরমে

প্রকাশিত: মার্চ ২২, ২০২৩ , ৭:০০ অপরাহ্ণ আপডেট: মার্চ ২২, ২০২৩ , ৭:০০ অপরাহ্ণ

সংস্কারের অভাবে কুমিল্লা মেঘনা উপজেলার ভাটেরচর হইতে ৯.৫০ কিলোমিটার মেঘনা উপজেলা বিশ্বরোড, মানিকারচর বাজার হইতে পাড়ারবন ব্রিজের ৭ কিলোমিটার, দিদার মেম্বার মোড় হইতে ৫.৫০ কিলোমিটার আলিপুর, মানিকাচর বাজার হইতে ৬.৫০ কিলোমিটার রামপুর বাজার সড়কটগুলোর বেহাল দশা হয়ে পড়েছে।

সরেজমিনে দেখা যায়, বিভিন্ন অংশে কার্পেটিং উঠে গিয়ে বড় বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। অনেক জায়গায় দেখা গেছে কার্পেটিং ও ইট উঠে গিয়ে মাটি বের হয়ে খানাখন্দের সৃষ্টি হয়েছে। পথচারী ও গাড়ির যাত্রীদের দুর্ভোগ পৌঁছেছে চরমে। প্রায় তিন বছর আগে থেকেই অধিকাংশ সড়ক চলাচল অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা, ভ্যান, ইঞ্জিনচালিত যানবাহন ও ট্রাকসহ বিভিন্ন যানবাহন চলাচল করছে। এই রাস্তাগুলো দিয়ে প্রায় ছয়টি থানার (মেঘনা, হোমনা, তিতাস, বাঞ্ছারামপুর, চান্দিনা, নবীনগর) লাখেরও বেশি যানবাহন চলাচল করে। তবে দুর্ঘটনা এড়াতে যানবাহন চলে ধীরগতিতে।

মো.ইব্রাহীম খলিল মোল্লা, মেঘনা (কুমিল্লা)

এ সময় কয়েকজন অটো ড্রাইভারের সাথে কথা বললে তারা জানান, রাস্তায় অনেক খানাখন্দ থাকায় প্রতিদিনই ছোট-বড় দুর্ঘটনা ঘটছে। এ রাস্তায় চলাচল করতে গিয়ে অসুস্থ য়য়ে পড়ছে অনেকেই। অনেক সময় রিকশায় বা অটোতে রোগী নিয়ে হাসপাতালে গেলে তাদের অবস্থা আরও করুণ হয়ে পড়ে। ভাঙ্গাচুরা রাস্তায় চালাতে গিয়ে প্রায়ই নাটবল্টু খুলে পড়ে যায়। ফলে সারাদিন ব্যাটারি চালিত অটো চালিয়ে যা রোজকার করি, তার একটা অংশ মেরামতেই শেষ হয়ে যায়। ২০ মিনিটের রাস্তা যেতে সময় লাগে ৪০-৪৫ মিনিট।

একজন পথচারীর কাছ থেকে জানতে চাইলে তিনি বলেন, অনুপযোগী সড়কগুলোর কারণে কৃষিপণ্য বাজারে নিয়ে যেতে এবং কোমলমতি শিশুদের স্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসায় যেতে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে স্থানীয় বাসিন্দাদের। জনস্বার্থে সড়কটি সংস্কার করা অতি জরুরি হয়ে পড়েছে।

এ ব্যাপারে উপজেলার প্রকৌশলী মো. অহিদুল ইসলাম সিকদার ভোরের কাগজকে বলেন, বৃহস্পতিবার (২৩ মার্চ) পাঁচ থেকে ছয়টি রাস্তা সংস্কারের টেন্ডার ওপেন করা হবে।

মো.ইব্রাহীম খলিল মোল্লা, মেঘনা (কুমিল্লা)

কেএইচ

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়