ওমিক্রনের নতুন উপধরন বিএফ ৭ শনাক্ত

আগের সংবাদ

নতুন বছরে ইতিবাচক রাজনীতির ধারায় ফিরবে বিরোধীদল

পরের সংবাদ

প্রাথমিক শিক্ষা সম্মেলন সম্পন্ন

শান্তিগঞ্জে ১০টি প্রাথমিক বিদ্যালয় পুরস্কৃত

প্রকাশিত: জানুয়ারি ১, ২০২৩ , ১:২৫ অপরাহ্ণ আপডেট: জানুয়ারি ১, ২০২৩ , ১:২৫ অপরাহ্ণ

প্রাথমিক শিক্ষার মানোন্নয়নে উপজেলার ৯৭টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের নিয়ে শিশুদের অক্ষরজ্ঞান, পঠন ও লিখন দক্ষতা এবং গাণিতিক সংখ্যার ধারণা তৈরির লক্ষ্যে একটি প্রতিযোগিতামূলক কার্যক্রমের পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে প্রাথমিক শিক্ষা সম্মেলন ২০২৩ সম্পন্ন হয়েছে। পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে অতিথিবৃন্দ উপজেলার ১০টি প্রাথমিক বিদ্যালয়কে সম্মাননা ক্রেষ্ট প্রদান করেন।

রবিবার (১ জানুয়ারী) দুপুর ১২ টায় উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে এফআইভিডিবির হল রুমে জেলা প্রশাসক দিদারে আলম মোহাম্মদ মাকসুদ চৌধুরীর সভাপতিত্বে অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সুনামগঞ্জ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য মোঃ আবু নঈম শেখ, বঙ্গবন্ধু মেডিক্যাল কলেজ সুনামগঞ্জের অধ্যক্ষ মনোজিৎ মজুমদার। রথপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আশীষ চক্রবর্তীর সঞ্চালনায় সভার শুরুতেই স্বাগত বক্তব্য রাখেন শান্তিগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ আনোয়ার উজ জামান।

সভায় আরও বক্তব্য রাখেন জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা এস.এম. আব্দুর রহমান, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. ফারুক আহমদ, ভাইস চেয়ারম্যান প্রভাষক নূর হোসেন, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান দুলন রানী তালুকদার, সহকারি কমিশনার(ভূমি) সকিনা আক্তার, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ জসিম উদ্দিন শরিফী ও শান্তিগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) খালেদ চৌধুরী প্রমুখ।

উল্লেখ্য, শান্তিগঞ্জ উপজেলার ৯৭টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের নিয়ে শিশুদের অক্ষরজ্ঞান, পঠন ও লিখন দক্ষতা এবং গাণিতিক সংখ্যার ধারণা তৈরির লক্ষ্যে শান্তিগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আনোয়ার উজ জামানের নেতৃত্বে একটি প্রতিযোগিতামূলক কার্যক্রম শুরু করা হয়। মৌলিক শিখন দক্ষতা যাচাই (বাংলা, ইংরেজি রিডিং, যোগ বিয়োগ গুণ ও ভাগ) ৫ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের মধ্যে বাংলা, ইংরেজি ও গণিতের মৌলিক শিখন দক্ষতা অর্জন করতে পেরেছে যথাক্রমে প্রায় ৭৫%, ৪৫% ও ৫৭% শিক্ষার্থী। যা ২০২২ শিক্ষাবর্ষের মাঝামাঝি তে ছিলো প্রায় ৩০%, ১০% ও ২১%। প্রাথমিক শিক্ষার মানোন্নয়নে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ ব্যতীত জনপ্রতিনিধিগণও এ কর্মসূচিতে অংশ স্বতস্ফুর্ত ভাবে গ্রহণ করেন। তার ফলশ্রুতিতেই এই হাওর অধ্যুষিত অঞ্চলের শিক্ষার্থীদের মৌলিক শিখনের বেশ অগ্রগতি সাধিত হয়েছে।

এসএম

মন্তব্য করুন

খবরের বিষয়বস্তুর সঙ্গে মিল আছে এবং আপত্তিজনক নয়- এমন মন্তব্যই প্রদর্শিত হবে। মন্তব্যগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত, ভোরের কাগজ লাইভ এর দায়ভার নেবে না।

জনপ্রিয়